জেনে নিন ডায়াবেটিস হলে কি কি সমস্যা হবে

ডায়াবেটিস এখনকার সময় বেশিরভাগ মানুষ এই রোগে আক্রান্ত। আপনার ডায়াবেটিস আছে জেনেও সঠিক নিয়ম কানুন মেনে না চললে শরীর কি সর্বনাশ ঘটাচ্ছেন।

আপনি তা যদি জানতেন তবে আজ থেকে ডায়াবেটিস সম্পর্কে জানতেন এবং নিয়ন্ত্রণ এর পেছনে উঠে পড়ে লাগবেন। তাহলে চলো না আজকের এই পোষ্টে ডায়াবেটিসের গুরুত্বপূর্ণ বিষয়গুলো ভালভাবে জেনে নেই ।

ডায়াবেটিস হলে কি কি সমস্যা হবে – কথায় আছে আহারে বাহারে বাঙালিয়ানা। বাহার কতটা জানা নেই তবে তা তো বটেই তা না হলে এমন অনেক মানুষই আপনি দেখতে পাবেন যারা high-level সুগার নিয়েও দিব্যি রসগোল্লা মিষ্টি সবার করছেন। আসলে তাদের কোনো ধারনাই নেই যে ডায়াবেটিস হলে কি কি সমস্যা হতে পারে।

আজ আপনাদের সেই বিষয়ে জানাবেন যাতে আপনারা আগাম সর্তকতা অবলম্বন করতে পারেন । আসলে অনেক মানুষের জানেন না যে ডায়াবেটিস হলে কি কি সমস্যা হতে পারে । রক্তের সুগারের মাত্রা ছাড়ানোয় আপনার শরীরের সমস্ত অভ্যন্তরীণ অঙ্গ ক্ষতিগ্রস্ত হবে সাথে সমস্ত কলা কোষ ক্ষতিগ্রস্থ হবে ।

ডায়াবেটিস হলে কি কি সমস্যা হবে

  • এই জটিলতার কারণে মানুষের হূদযন্ত্রের সমস্যা, স্ট্রোক হতে পারে।
  • এছাড়াও ডায়াবেটিসের কারণে মানুষ অন্ধ হয়ে যেতে পারে
  • নষ্ট হয়ে যেতে পারে কিডনি
  • অনেক সময় ডায়াবেটিক রোগীদের শরীরের নিম্নাঙ্গে ঘা হয়।
  • যা সহজে শুকাতে চায় না। পা কেটে ফেলতে হতে পারে।

আপনার রক্তের সুগার যত বেশি হবে আর তার যতদিন ধরে স্থায়ী হবে  ক্ষতির হার ততোই বাড়বে । ফলে আপনার যে ক্ষতি হতে পারে সেগুলো বোঝার চেষ্টা করি। রক্তের সুগারের মাত্রা ছাড়ালে হূদরোগ হার্ট অ্যাটাক ও স্ট্রোকের সম্ভাবনা অনেক গুন বেড়ে যায়।

আপনার ডায়াবেটিস এর সরাসরি মৃত্যুর না হলেও আরও বড় কিছু আপনার মৃত্যুর পরোয়ানা দিকে আরেকটু ডায়াবেটিস এর ক্ষেত্রে খুবই মারাত্মক খুবই সাধারণ একটি সমস্যা হলো ডায়াবেটিক নিউরোপ্যাথি। স্নায়ুতন্ত্রের ক্ষতি জনিত রোগ যা ধীরে ধীরে ছড়ায়।

ডায়াবেটিস হলে কি কি সমস্যা হবে এমন কি দশ থেকে কুড়ি বছর ধরে হতে পারে। ডায়াবেটিক নিউরোপ্যাথি শুরুটা হয় হাত ও পায়ের পাতার অসারতা সন্ধান করা দেখাও দুর্বলতা থেকে । এই রকম হলে ডাক্তার বাবুর সাথে কথা বলা উচিত । ডাক্তার না দেখালে এই অবস্থা মাএা ছাড়াবে।

পায়ের পাতায় ক্ষত

আপনি ব্যথা অনুভব করতে পারবেন না । পায়ের পাতায় মারাত্মকভাবে ক্ষত হলে সহজে আর ছাড়বে না শেষ অবস্থা এমন দাঁড়াবে যে আবার হাত পা কেটে বাদ দিতে হতে পারে।  ডায়াবেটিস হলে আর একটি মারাত্মক রোগের সম্ভাবনা প্রবল তাহলো ডায়াবেটিক নেফ্রোপ্যাথি। 

কিডনি

একটি কিডনি ডিজিজ ধীরে ধীরে ছড়ায় কিন্তু প্রথমেই ডাক্তারবাবুর পরামর্শ না নিলে মৃত্যু প্রায় নিশ্চিত। ৪০ শতাংশের ওপরে কিডনি ফেইলিওর এর পেছনে ডায়বেটিস দায়ি । ডায়বেটিসের সম্ভবনা প্রবল যদি দীর্ঘদিন ধরে রক্তের সুগার উচ্চমাত্রার থাকে আর আপনি নিয়ন্ত্রণে কোন চেষ্টাই না করেন ।

তবে রেটিনোপ্যাথি পেয়ে বেগিনার রক্তজালিকা ক্ষতিগ্রস্ত হয়ে আপনার অন্ধত্ব ডেকে আনবে।  রক্তজালিকা ক্ষতিগ্রস্ত হলে প্রথমে আপনার দেখতে অসুবিধা হবে । পরে আস্তে আস্তে অন্ধত্ব চলে আসবে। অন্ধত্বের অন্যতম কারণ রেটিনোপ্যাথিন।

কানে শোনার ক্ষেত্রে সমস্যা

আপন রক্তের সুগারের মাত্রা দীর্ঘদিন ধরে খুব বেশি থাকলে কানে শোনার ক্ষেত্রে সমস্যা হতে পারে। কানে শোনার সমস্যা হের in-lOSS পর্যন্ত যেতে পারে । যদি আপনি কোন ব্যবস্থা না নেয়।  কিছু বিশেষজ্ঞ মনে করেন যাদের ডায়াবেটিস আছে তাদের ডিপ্রেশনের সমস্যার দ্বিগুণ বেড়ে যায়। 

তবে এর উল্টোটাও হতে পারে যাদের ডিপ্রেশন থাকে তাদের ডায়াবেটিসের সম্ভাবনা অনেক বেশি । ডায়াবেটিসে আপনার দিমেনশন সম্ভাবনাও আছে।  সেক্ষেত্রে আপনি সহজে ভুলে যাবেন। চিন্তা করতে সমস্যা হবে ।

ডায়াবেটিস হলে কি কি সমস্যা হবে কথোপকথনে সমস্যা হবে । সবকিছুতে একটা কনফিউশন থাকবে এরকম কিছু হলে আপনাকে ডাক্তার বাবুর সাথে খুব তাড়াতাড়ি কথা বলা উচিত ।

ডায়াবেটিস হলে কি কি সমস্যা হবে সর্বশেষ

জ্বর সর্দি মতো কোনো সাধারণ বিষয় নয় । রক্তের সুগার বাড়লে সময় নষ্ট না করে আপনার সুগার নিয়ন্ত্রণের বিষয়ে নজর দেয়া উচিত । মেডিসিন নিয়ে ও জীবনযাত্রার মান পরিবর্তন করে ডায়াবেটিসের ক্ষতি থেকে নিজেকে বাঁচাতে পারেন ।

আরও পড়ুন : কিভাবে প্রাকৃতিক উপায় হজম শক্তি বৃদ্ধি করা যায়?

Leave a Comment